অটোয়ায় ঘাতক ট্রাক কেড়ে নিলো বাংলাদেশি নুসরাতের জীবন

0
523
সদেরা সুজন, সিবিএনএ কানাডা থেকে:
 কানাডার রাজধানী অটোয়ায়  ট্রাকচাপায় এক বাংলাদেশি তরুনী ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারিয়েছেন। গতকাল ১ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার সকালে এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে কানাডার রাজধানী অটোয়ায়। জানা গেছে নিহত তরুনীর নাম নূসরাত জাহান। তাঁর বাবা অটোয়ায় বাংলাদেশ হাই কমিশনের  একাউন্ট্যান্ট হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।
নুসরাত জাহান
নুসরাত জাহান
 স্থানীয় সূত্রগুলো জানায়, ২৩ বছর বয়সী নূসরাত সাইকেল চালিয়ে বাসা থেকে দুই  ব্লক দুরে একাউন্টিং ক্লাশে যাচ্ছিলেন। লিয়ন স্ট্রিট ও লরিয়র এভেনিউতে টমলিনসন কন্সট্রাকশন এর একটি ট্রাক নূসরাতকে চাপা দেয়। মৃত্যুর সংবাদ মূলধারার বিভিন্ন টিভি চ্যানেল ও অন লাইন পত্রিকায় প্রকাশের পর পরই স্যোশাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে কানাডাস্থ বাংলাদেশ হাই কমিশনসহ প্রবাসীদের মধ্যে  শোকের ছায়া নেমে আসে।

ট্রাক চাপায় বাংলাদেশি এই তরু

নীর র্মমান্তিক মৃত্যুতে কমিউনিটিতে তীব্র প্রতিক্রিয়া ও শোকের ছায়া নেমে আসে । অটোয়ার  সিটি মেয়র জিম ওয়াটসন নূসরাতের মৃত্যুতে গভীর শোক ও সমবেদনা প্রকাশ করেছেন।

ঘাতক ট্রাকটির মালিক প্রতিষ্ঠান টমলিনসন কন্সট্রাকশনও এক বিবৃতিতে  ঘটনার জন্য গভীর দু:খ প্রকাশ করেছে। কোম্পানিটি জানিয়েছে, তাদের প্রতিষ্ঠান অভ্যন্তরীন তদন্তের উদ্যোগ নিয়েছে। পুলিশের তদন্তকেও তারা সর্বাত্মক সহযোগিতা করছে।

নূসরাত মাত্র তিন বছর আগে বাবার  চাকরির সুবাদে পরিবারের সাথে অটোয়ায় এসেছিলো। পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে নূসরাত খুবই শান্ত, ভদ্র এবং অমায়িক ছিলো।

নূসরাতের অকাল প্রয়াণে কানাডা প্রবাসীদের মধ্যে গভীর শোকের পাশাপাশি ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে । এ মৃত্যু নেহাতই দূর্ঘটনা না-কি অন্য কিছু তা নিয়ে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনা চলছে। উল্লেখ্য,  নিউইয়র্কে একের পর এক প্রবাসী হত্যাকান্ড ঘটার পর এরকমের ঘটনা অনেকটা প্রশ্নের মুখোমুখি করে তুলছে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here