সেমিফাইনালে ভারতকে মোকাবেলা করা কতটা চ্যলেঞ্জিং হবে টাইগারদের?

স্পোর্টস ডেস্ক: আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে তুলনামূলক কঠিন গ্রুপে পড়েছিল বাংলাদেশ। টাইগাররা লড়াই করেছে ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে। মাঠে নিজেদের লড়াই ও ভাগ্য দুইটি মিলেই টাইগাররা এমন কঠিন গ্রুপ থেকে উঠে গেছে সেমিফাইনালে।

আজ সোমবার শেষ হয়েছে গ্রুপ পর্বের খেলা। সুতরাং, আজই নির্ধারণ হয়েছে সেমিফাইনালে কে কার মুখোমুখি হবে। ফাইনালে উঠার লড়াইয়ে প্রতিপক্ষ হিসেবে ভারতকে পেয়েছে বাংলাদেশ। আগামী ১৫ জুন বার্মিংহামের এজবাস্টনে বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যকার সেমিফাইনাল ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে। তার আগে ১৪ জুন কার্ডিফের সোফিয়া গার্ডেন্সে প্রথম সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ড ও পাকিস্তান।

গ্রুপ ‘এ’ থেকে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিতে উঠেছে ইংল্যান্ড। আর গ্রুপ রানার আপ হয়ে শেষ চারে উঠেছে বাংলাদেশ। বিদায় নিয়েছে অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড।

অন্যদিকে, গ্রুপ ‘বি’ থেকে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিতে উঠেছে ভারত। আর গ্রুপ রানার আপ হয়ে সেমিতে উঠেছে পাকিস্তান। এই গ্রুপ থেকে বিদায় নিয়েছে সাউথ আফ্রিকা ও শ্রীলঙ্কা।

এর আগে দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে ভারত চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির সেমিফাইনাল নিশ্চিত করার দিনে সেইদিনের ফলাফলের প্রতিক্রিয়ায় ভারতের সাবেক ক্রিকেটার সৌরভ গাঙ্গুলি বলেন, ‘ভারতের পারফরম্যান্স ছিল এক কথায় অসাধারণ।’ সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়া টুডেকে দেয়া সাক্ষাৎকারে সৌরভ গাঙ্গুলি বলেন, ‘এই জয় ভারতের মনোবল ও আত্মবিশ্বাসকে আরো চাঙ্গা করে দেবে।’

‘চ্যাম্পিয়্ন্স ট্রফির সেমিফাইনালে ভারতের মতো প্রফেশনাল দলকে মোকাবেলা করাটা বাংলাদেশের জন্য অনেক কঠিন হবে’-বলেছেন সাবেক এই অধিনায়ক। তবে বাংলাদেশও যে ভারতের বিপক্ষে ভালো লড়াই করবে সেটাও মনে করছেন সৌরভ গাঙ্গুলি।

‘কাগজে কলমে দক্ষিণ আফ্রিকা অবশ্যই ভালো দল, কিন্তু চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে তাদের পারফরম্যান্স খুবই খারাপ ছিলো। অন্যদিকে বাংলাদেশ দক্ষিণ আফ্রিকার তুলনায় দুর্বল দল হলেও তারা দারুণ লড়াই করবে আমার মনে হয়।কারণ, তাদের ব্যাটিং লাইন-আপ ভালো। তারা স্পিন ভালো খেলতে পারে, এছাড়া তাদের বোলাররাও ভালো করছে। কিন্তু ভারতের মতো এমন বিধ্বংসী দলকে মোকাবেলা করার মতো শক্তিশালী দল বাংলাদেশ কিনা সে বিষয়ে আমি নিশ্চিত নই’- বলছেন সৌরভ গাঙ্গুলি।

রবিবার ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকা, দুই দলের জন্যই ওভালে ছিল টুর্নামেন্টে বাঁচা-মরার লড়াই। দক্ষিণ আফ্রিকা প্রথমে ব্যাট করে ব্যাটিং বিপর্যয়ের মুখে পড়ে এবং ৪৪ ওভার ৩ বলে মাত্র ১৯১ রানেই তারা অল আউট হয়ে যায়।

জবাবে ভারত পুরো বারো ওভার বাকি থাকতেই মাত্র দুই উইকেট হারিয়ে জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় রান তুলে নেয়। সেই সঙ্গে তাদের গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়াও এক রকম নিশ্চিত হয়ে যায়। বড় রানের ইনিংস খেলেন অধিনায়ক ভিরাট কোহলি ও ওপেনার শিখর ধাওয়ান।

সোফিয়া গার্ডেন্সে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে বাংলাদেশ এর আগেই সেমিফাইনালে তাদের জায়গা নিশ্চিত করে ফেলেছিল। এখন মাত্র বছর দুয়েকের মধ্যে দ্বিতীয়বার কোনো আইসিসি টুর্নামেন্টের নক-আউট পর্যায়ে তারা ভারতের বিরুদ্ধে খেলবে।
চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে উঠলেই যত পুরষ্কার পাবেন মাশরাফিরা!

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here