মন্ত্রীসভা রদবদলের কোন সম্ভাবনা নেই: নিউইয়র্কে পরিকল্পনামন্ত্রী মোস্তফা কামাল

বর্ণমালা ডেস্ক: পরিকল্পনা মন্ত্রী আহম মোস্তফা কামাল বলেছেন, সরকারের মেয়াদের শেষ সময়ে মন্ত্রী সভা রদ বদলের কোন সম্ভাবনাই নেই। কিছু মিডিয়া পাঠকদের মুখরোচক খবর দিতে অতি উৎসাহী হয়ে এসব নিউজ করছে। এটা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন। ২০ জুলাই বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জ্যামাইকা হিলসাইডের স্টার পার্টি হলে বৃহত্তর লাকসাম ফাউন্ডেশন ইউএসএ ইনক আয়োজিত সংবর্ধনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। বৃহত্তর লাকসাম ফাউন্ডেশনের সভাপতি ও বাংলাদেশ সোসাইটির সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল কালাম ভূইঁয়ার সভাপতিত্বে ও সাধারন সম্পাদক নূরে আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, আমেরিকায় বাংলাদেশী আইটি প্রতিষ্ঠান পিপল এন টেকের সিইও ও প্রতিষ্ঠাতা বৃহত্তর লাকসামের কৃতি সন্তান ইঞ্জিনিয়ার আবুবকর হানিপ, জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন, নিউইয়র্কে বাংলাদেশের কনসাল জেনারেল শামীম আহসান, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শামছুদ্দিন আজাদ, সেক্রেটারী আবদুস সামাদ আজাদ। দেশ ও প্রবাসের বিভিন্ন দাবী দাওয়া তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন, অনুষ্ঠানের প্রধান সমন্বয়কারী ও সংগঠনের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রবিউল হাছান, নিউইয়র্ক সিটি কাউন্সিল নির্বাচনে ডিষ্ট্রিক্ট ২৪ কাউন্সিলম্যান প্রার্থী মোহাম্মদ তৈয়বুর রহমান হারুন, বৃহত্তর কুমিল্ল¬া সমিতির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি হাজী আলী আক্কাস, বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতি, যুক্তরাষ্ট্র ইনকের সভাপতি আলহাজ্ব ফিরোজুল ইসলাম পাটোয়ারী, বাংলাদেশ সোসাইটির কোষাধ্যক্ষ মোহাম্মদ আলী, বুদ্ধিষ্ট এসোসিয়েশন প্রধান উপদেষ্টা বাবু চিত্ত রঞ্জন সিংহ, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আক্তারুজ্জামান, কমিউনিটি এক্টিভিষ্ট প্রফেসর সাফায়াত উল্ল¬াহ মজুমদার, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আব্দুল জলিল তিতুমীর ও কামাল উদ্দিন, সংগঠনের সিনিয়র সহ সভাপতি সাংবাদিক মশিউর রহমান মজুমদার, জয়েন্ট সেক্রেটারী ওমর ফারুক রিপন, মাষ্টার মীর হোসেন ভূইয়া, দুলাল চন্দ্র সিংহ, সুসমা সিংহ হ্যাপী, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ মাকসুদ, রহমানিয়া ট্রাভেলসের প্রেসিডেন্ট মাওলানা এ.কে.এম মাহমুদ, দলিলুর রহমান। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন, কলামিষ্ট কুলসুম আক্তার সুমী,। অনুষ্ঠানের শুরুতে কুরআন তেলাওয়াত করেন কার্যকরী সদস্য এ.বি.এম হুমায়ুন কবির, গীতা পাঠ করেন সুজন সাহা, ত্রিপিঠক পাঠ করেন দুলাল বড়ূয়া। প্রধান অতিথিকে ফুল দিয়ে বরণ করেন জান্নাতুল আয়েশা ডেলসী।

কুমিল্লা ও লাকসামের বিভিন্ন দাবী দাওয়া তুলে ধরে স্বারকলিপি প্রদান করেন লাকসাম জেলা বাস্তবায়ন কমিউনিটির সদস্য সচিব সাংবাদিক মশিউর রহমান মজুমদার, লাকসাম ফাউন্ডেশন সভাপতি আবুল কালাম ভূইঁয়া, সেক্রেটারী নূরে আলম, মোঃ আক্তারুজ্জমান, আবদুল জলিল তিতুমীর, প্রফেসর সাফায়াত উল্লাহ, পরিমল বড়ূয়া, রবিউল হোসেন (লাকসাম মোহাম্মদ পুর) সহ বৃহত্তর লাকসামের নেতৃবৃন্দ। স্বারকলিপিতে দাবী গুলোর মধ্যে রয়েছে লাকসামকে জেলা করা, একটি স্থায়ী দাতব্য চিকিৎসালয় করা, প্রবাসের লাকসাম ফাউন্ডেশনের একটি স্থায়ী ভবন ও লাকসাম ফাউন্ডেশনের কার্যক্রমে সার্বিক সহায়তা করা। এ ছাড়া কুমিল্ল¬া নামেই বিভাগ, কুমিল্ল¬া বিমান বন্দর, কুমিল্ল¬া আর্ন্তজাতিক স্টেডিয়াম নির্মাণ ও মনোহর গঞ্জ, নাঙ্গলকোটের ১টি হাইস্কুল ও কলেজকে সরকারি করনের দাবী জানান। মন্ত্রী এসব দাবী বাস্তবায়নে সহায়তা করার আশ্বাস দেন। তবে লাকসাম জেলা বাস্তবায়ন ও কুমিল্লা নামে বিভাগ করা সম্পূর্ণ করার প্রধানমন্ত্রীর এখতিয়ার বলে তিনি জানান। পরিকল্পনা মন্ত্রী আহম মোস্তফা কামাল বলেন, গত নির্বাচনের শ্লোগান ছিল ডিজিটাল বাংলাদেশ, আগামী নির্বাচনের শ্লে¬াগান হবে শতভাগ বেকার মুক্ত বাংলাদেশ। তিনি বলেন, দেশ এখন উন্নয়নের রুল মডেল। বাংলাদেশকে নিয়ে বিশ্ব নেতারা গর্ব করেন। আমেরিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা নিজ জন্মস্থান কেনিয়া সফরে গিয়ে বলেছিলেন, উন্নয়ন দেখতে হলে বাংলাদেশে যাও। তিনি বলেন, দেশ প্রেমের জন্য একমুহুর্তেই আইসিসির চেয়ারম্যান পদ থেকে পদ ত্যাগ করেছি। ঐ সময় দলমত নির্বিশেষে সারা দেশের মানুষ এক হয়ে গিয়েছিল। প্রবাসে কোন দল নেই। এর প্রমাণ আজকের লাকসাম ফাউন্ডেশনের মতবিনিময় সভা। এখানে আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জামায়াত, জাতীয় পার্টি সকল দল ও মতের লোক রয়েছেন। এমনি ভাবে দেশের স্বার্থে সবাই এক হয়ে কাজ করুন। তাহলে দেশ আরো উন্নতি লাভ করবে। জাতীয় নির্বাচনে প্রবাসীদের দেশে গিয়ে অংশ নেয়ার আহবান জানান। তিনি কুইন্সের বাংলাদেশী কাউন্সিলর প্রার্থী তৈয়বুর রহমান হারুনকে ভোট দেয়ার আহবান জানান। মতবিনিময় সভার আয়োজন করায় লাকসাম ফাউন্ডেশনের নেতৃবৃন্দকে ধন্যবাদ জানান পরিকল্পনা মন্ত্রী। ছাত্র জীবনের স্মৃতিচারণ করে তিনি বলেন,অর্থের অভাবে ইন্টারমেডিয়েট পরীক্ষার ফি দিতে পারিনি। গ্রামের হাবিবুল্ল¬াহ মেম্বার সাহেব ফি দিয়ে সাহায্য করেছেন। জীবনের এই পর্যায়ে এসেও মনে হচ্ছে আজও হাবিব উল্লাহ মেম্বারের ঋণ শোধ করতে পারিনি। সকলের অর্জিত অর্থেই অসহায়দের সাহায্যের আহবান জানান। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ইঞ্জিনিয়ার আবুবকর হানিপ বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে আইটি সেক্টরে বাংলাদেশীদের সুনাম ছড়িয়ে পড়ছে। শিক্ষিত বেকারদের আইটিতে দক্ষ করতে কাজ করছে পিপল এন টেক।

LEAVE A REPLY