মেক্সিকোকে শায়েস্তা করার হুমকি ট্রাম্পের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের অপেক্ষায় মেক্সিকোতে সহস্রাধিক ব্যক্তি

0
29
আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের অপেক্ষায় মেক্সিকোতে অপেক্ষমান সহস্রাধিক ব্যক্তিকে নিয়ে চিন্তিত হয়ে পড়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। দক্ষিণ আমেরিকা থেকে মেক্সিকোতে আসা প্রায় ১ হাজার ২০০ অভিবাসী মেক্সিকোর কয়েকটি শহরে অপেক্ষা করছে। ওই দলটি যুক্তরাষ্ট্রে যাওয়ার জন্য এবং শহরে থাকতে মেক্সিকো সহায়তা করেছেন বলে দাবি করেন ট্রাম্প।
ট্রাম্প টুইটারে লিখেছেন, মেক্সিকো তাদের ঠেকাতে কোনো কার্যকর পদক্ষেপ নেয়নি। দেশটি যদি অভিবাসী হতে ইচ্ছুক দলটির যুক্তরাষ্ট্রে ঢোকা ঠেকাতে পদক্ষেপ না নেয় তাহলে নাফটা চুক্তি থেকে পাওয়া মেক্সিকোর সুবিধা বন্ধ করিয়ে দেবেন তিনি। যুক্তরাষ্ট্রে অভিবাসী হতে ইচ্ছুক সহস্রাধিক ব্যক্তির ওই দলের কারণে ট্রাম্প কী করতে পারেন তা নিয়ে চিন্তিত মেক্সিকো। দেশটি যুক্তরাষ্ট্রের হোমল্যান্ড সিকিউরিটি মন্ত্রীর সঙ্গে এ নিয়ে আলোচনা করার কথা জানিয়েছে।
মূলত গুয়েতেমালার মতো দক্ষিণ আমেরিকার দেশগুলোর বাসিন্দা ওই দলের সদস্যরা। তাদের কারও উদ্দেশ্য কোনো মতে যুক্তরাষ্ট্রে ঢুকে পড়া আর কারও ইচ্ছা যুক্তরাষ্ট্র সীমান্তে গিয়ে রাজনৈতিক আশ্রয় প্রার্থনা করা।
অভিবাসী হতে ইচ্ছুকদের দলটি মেক্সিকোর যে শহরগুলো পার হয়ে যাচ্ছে তার কয়েকটি বেশ আড়ম্বর করেই গ্রহণ করেছে তাদের। তাদের বাস্থানের ব্যবস্থার পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্র সীমান্তের দিকে যেতে গাড়ির ব্যবস্থাও করে দিয়েছে মেক্সিকোর শহরগুলো। আপাত দৃষ্টিতে এমন কাজকে মেক্সিকোর শহরগুলোর সহযোগিতা মনে হলেও ‘পুয়েবলো সিন ফ্রনটেরাসের’ রডরিগো আবেজা বলেছেন, ‘এর একটি কারণ, আমারা যেন দ্রুত তাদের এলাকা থেকে চলে যাই।’
বসন্তের কোনো এক সময়ে গুয়েতেমালার সীমান্তের কাছে তাপাচুলা নামের স্থান থেকে অভিবাসী হতে ইচ্ছুক ওই ব্যক্তিদের যাত্রা শুরু হয়েছিল। সেখান থেকে এ পর্যন্ত দলটি ৩ হাজার ২০০ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করেছে।
শহরগুলো আপাতত সহায়তা করলেও, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রতিক্রিয়ার ভয়ে তাদের যাত্রাকে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করেছে মেক্সিকোর সরকার। তারা সোমবার এক বিবৃতি দিয়ে বলেছে, শুধু বৈধ ও নিয়মতান্ত্রিক অভিবাসন সমর্থন করে মেক্সিকো। অভিবাসীদের এমন দল ২০১০ সাল থেকেই নিয়মিত যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্তে যাচ্ছে। মূলত দক্ষিণ আমেরিকা থেকে যাওয়া ওইসব নাগরিকরা মেক্সিকোতেও অবৈধ। মেক্সিকোতে ঢোকার কোনো বৈধ  নথি তাদের নেই। দেশটির সরকার দাবি করেছে, এর মধ্যে তারা এমন ৪০০ জনকে নিজ নিজ দেশে ফেরত পাঠিয়েছে।
যুক্তরাষ্ট্রে যেতে ইচ্ছুক ওই দলটির বিষয়ে সোমবার ট্রাম্প টুইটারে ক্ষোভ ঝেড়েছেন। তিনি বলেছেন, মেক্সিকো যদি ওই দলটিকে থামাতে কার্যকর ব্যবস্থা না নেয় তাহলে তিনি নাফটা চুক্তি থেকে পাওয়া মেক্সিকোর সুবিধা বন্ধ করে দেওয়ার ব্যবস্থা করবেন। মেক্সিকোর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আলফনসো নাভারেতে অভিবাসীদের দলটি সম্পর্কে সরাসরি মন্তব্য না করে টুইটারে লিখেছেন, তিনি যুক্তরাষ্ট্রের হোমল্যান্ড সিকিউরিটি মন্ত্রী ক্রিস্টজেন নিয়েলসেনের সঙ্গে সোমবার বৈঠক করেছেন। তারা অভিবাসন নিয়ে দুই দেশের আইন মেনে সমাধান খুঁজে বের করতে গভীরভাবে বিচার-বিশ্লেষণ করবেন। মেক্সিকোর জন্য বিষয়টি খুবই স্পর্শকাতর। কারণ যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা ও মেক্সিকোর মধ্যে নাফটা চুক্তি নিয়ে আলোচনা চলছে। আর নাফটা চুক্তি দিয়েই মেক্সিকোকে শায়েস্তা করার হুমকি দিয়েছেন ট্রাম্প।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here